সোমবার, ২৫ জানুয়ারী ২০২১, ১২:০১ পূর্বাহ্ন

নতুন বছরের প্রথম দিন দল ঘোষণা,অনুশীলন শুরু ৭ তারিখ,

করোনাভাইরাসের কারণে অন্য সব খেলার মত ক্রিকেটও বন্ধ ছিল বেশ কয়েক মাস। দেশে-বিদেশে বেশ কয়েকটি সিরিজ হয়নি টাইগারদের। শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে সিরিজের কথা ছিল। তার প্রস্তুতিও শুরু হয়েছিল। কিন্তু শেষপর্যন্ত লঙ্কানদের কড়া প্রটোকলের কারণে সেই সিরিজ না খেলার সিদ্ধান্ত নিয়েছে বিসিবি।

ফলে এখনও আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ফেরা হয়নি টিম বাংলাদেশের। তবে ঘরের মাঠে প্রথমে প্রেসিডেন্টস কাপ ওয়ানডে ও পরে বঙ্গবন্ধু টি-টোয়েন্টি কাপ খেলছেন টাইগার ক্রিকেটাররা। ঘরের মাঠে ক্রিকেট ফিরলেও, আন্তর্জাতিক ম্যাচ কবে শুরু হবে তা জানতে আগ্রহ ছিল সবার।

সব কিছু ঠিক থাকলে ২০২১ সালের জানুয়ারি-ফেব্রুয়ারিতে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে দেশের মাটিতে আবার আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ব্যাট-বল হাতে মাঠে নামবে টাইগাররা। দুই ম্যাচের টেস্ট সিরিজের সঙ্গে তিন ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজ খেলতে আগামী ১০ জানুয়ারি দেশে আসার সূচি চূড়ান্ত হয়েছে জেসন হোল্ডারের দলের।,

সেই সূচি মোতাবেক, আগামী ২০ জানুয়ারি শেরে বাংলায় প্রথম ওয়ানডে। বাংলাদেশে আসার পর এক সপ্তাহ কোয়ারেন্টাইনে থেকে ওয়ানডে সিরিজ শুরুর আগে ১৮ জানুয়ারি একটি প্রস্তুতি ম্যাচও খেলবে ক্যারিবীয়রা। পরে ফেব্রুয়ারির ৩ তারিখ থেকে শুরু টেস্ট সিরিজ। সেই সিরিজের আগে আছে একটি চারদিনের প্রস্তুতি ম্যাচ।,

ক্যারিবীয়দের বিপক্ষে এই সিরিজ সামনে রেখে নতুন বছরের প্রথম সপ্তাহেই শুরু হয়ে যাচ্ছে টাইগারদের প্রস্তুতি। প্রধান নির্বাচক মিনহাজুল আবেদিন নান্নুর দেয়া তথ্য অনুযায়ী, আগামী ৭ জানুয়ারি থেকে শুরু হবে অনুশীলন। তারও আগে ১ থেকে ৩ জানুয়ারির মধ্যে হবে দল ঘোষণা।

আগামীকাল (শুক্রবার) শেষ হচ্ছে বঙ্গবন্ধু টি-টোয়েন্টি কাপ। গত মাসের ২৪ তারিখ থেকে শুরু হওয়া এ আসরে জাতীয় পর্যায়ের বেশিরভাগ ক্রিকেটারই গড়পড়তা ৮ থেকে ১০টি ম্যাচ খেলে ফেলেছেন। খুব স্বাভাবিকভাবেই খানিক ক্লান্তি ও অবসাদ আছে। তা কাটাতে কিছুটা সময় বিশ্রাম দরকার। তাই আগামী ৭ জানুয়ারি থেকে অনুশীলন শুরুর দিনক্ষণ চূড়ান্ত হয়েছে।

জাতীয় দলের প্রধান নির্বাচক জাগো নিউজকে জানিয়েছেন, ‘আমরা এ বছর দল ঘোষণা করব না। পহেলা জানুয়ারিই হতে পারে দল ঘোষণা।’ তা না হলে নতুন বছরের ৩ জানুয়ারির মধ্যে দল ঘোষণার কাজ সেরে ফেলার কথা জোর দিয়ে বলেন নান্নু।

প্রথমে তিন ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজ, তারপর আবার দুই ম্যাচের টেস্ট সিরিজ। মাঝে সময় কম। তাই ওয়ানডের পর টেস্টের আগে আর আলাদা দল ডেকে অনুশীলন করা সম্ভব না। তাই একেবারে দুই সিরিজের জন্য ২৪ জনের দল ঘোষণা করা হবে। সেখান থেকেই প্রথমে ১৫-১৬ জনের ওয়ানডে দল আর পরে ১৪-১৫ সদস্যর টেস্ট স্কোয়াড বেছে নেয়া হবে।


মুজিব বর্ষ

মুজিববর্ষ
© ২০১৩ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত সময়ের কন্ঠ লিঃ
কারিগরি সহায়তায় N Host BD